মাইক্রোসফট গত মঙ্গলবারে বেশ কয়েকটি সারফেস নোটবুক লঞ্চ করেছে  নিউইয়র্ক এর একটি প্রেস কনফারেন্সে। ম্যাট ব্ল্যাক সারফেস প্রো, করটানা চালিত হেডফোন এই এভেন্টে থাকলেও, প্রধান আকর্ষণ ছিল নতুন সারফেস স্টুডিও হার্ডওয়্যার। মাইক্রোসফট একটি মজার পরিবর্তন আনছে তাদের উইন্ডোজ ওপারেটিং সিস্টেমে। উইন্ডোজ ১০ খুব শিঘ্রই অ্যাান্ড্রয়েড এর মোবাইল অ্যাাপ সাপোর্ট আনবে পিসিগুলোতে।

মাইক্রোসফট এর নতুন ফোন অ্যাপ “ইওর ফোন” এ উইন্ডোজ ১০ এর জন্য এই সাপোর্ট থাকছে। এই অ্যাপটি গত সপ্তাহে উইন্ডোজ ১০ এর অক্টোবর আপডেটের সাথে লঞ্চ হয়েছে। কিন্তু অ্যাপ এর মিররিং সাপোর্টটি আগামি বছরের আগে আসছে না। মাইক্রোসফট সংক্ষিপ্ত ভাবে এর একটা প্রদর্শনী করেছে। আপনি আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনের স্ক্রিনটি সরাসরি উইন্ডোজ ১০ এ মিরর করতে পারবেন “ইওর ফোন” অ্যাপ এর মাধ্যমে। আপনি সরাসরি পিসি থেকে অ্যাপগুলোকে এক্সেস করতে ও আপনার ফোনে পিসি থেকে করা পরিবর্তনগুলো সহজেই করতে পারবেন।

মাইক্রোসফট সম্পূর্ণ রুপেই অ্যান্ড্রয়েড এর সাথে নিজেদের সম্পৃক্ত করছে

আমরা অনেকগুলো পন্থায় অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ উইন্ডোজে ব্যবহারে উপায় দেখেছি বিগত বছরগুলোতে, যার মাঝে ব্লস্ট্যাক্স এবং ডেল এর মোবাইল কানেক্ট সফটওয়্যার অন্যতম। এই অ্যাপ মিররিং সার্ভিসগুলো অ্যান্ড্রয়েডে খুবই সহজ, কারন এটি আইওস থেকে অনেকটাই সহজে এক্সেস করা যায়। তার পরেও মাইক্রোসফট এর অ্যান্ড্রয়েডকে স্বাগতম করাতে এটাই বুঝা যায় যে, কোম্পানীটি এখন সম্পূর্ণ রুপে অ্যাান্ড্রয়েডের সাথে একটা স্থায়ী সম্পর্ক করতে যাচ্ছে।

মাইক্রোসফট লঞ্চার টি ডিজাইন করা হয়েছে গুগলের ডিফল্ট লঞ্চারকে রিপ্লেস করার জন্য এবং মাইক্রোসফট এর সকল সার্ভিস অ্যান্ড্রয়েড ইউজারদের কে ঠিকভাবে হোম স্ক্রিনে দেয়ার জন্য। এটি একটি জনপ্রিয় লঞ্চার এবং মাইক্রোসফট নিয়মিত এটিকে আপডেট করে এবং উইন্ডোজ ১০ এর টাইমলাইন সাপোর্টও দেয়া হয়েছে এই লঞ্চারে।

এই সব দেখে যেন উইন্ডোজ ফোনের কথা মনে পরে যায়। প্রায় ৩ বছর হয়ে গেছে, মাইক্রোসফট তাদের উইন্ডোজ ৯৫০ ফোনটি লঞ্চ করেছিল। যেটা ছিল বছরের সবচেয়ে জনপ্রিয় হার্ডওয়্যার ইভেন্টে। উইন্ডোজ ফোন বাজার থেকে বিলুপ্ত হয়ে গিয়েছে প্রায় ২ বছর আগে এবং মাইক্রোসফটও প্রায় ১ বছর আগে ঘোষণা দিয়েছে উইন্ডোজের শেষ যাত্রার। সফটওয়্যার প্রতিষ্ঠানটি মেনে নিয়েছে এ ইউজাররা মোবাইল ডিভাইসে উইন্ডোজ চায় না। তাই তারা এখন অ্যান্ড্রয়েডকেই পুজি করে তাদের মোবাইল প্ল্যাটফর্মের সফটওয়্যার ডেভেলপমেন্ট শুরু করেছে।

অ্যানড্রয়েড এখন সুস্পষ্ট  পছন্দ এখন সকল উইন্ডোজ ইউজারদের

মাইক্রোসফট এর সবচেয়ে ভাল মোবাইল সফটওয়্যার এখন বাজারে লঞ্চ হতে চলেছে এবং যদি আপনি উইন্ডোজ ইউজার হয়ে থাকেন তো গুগলের সফটওয়্যার সবসময়ই সবচেয়ে সহজ উইন্ডোজ সহযোগী বলে মনে হয়ে থাকার কথা। যেহেতু মাইক্রোসফট তাদের সব সার্ভিস আইফোনে দিতে পারছে না, তাই অ্যান্ড্রয়েডই একমাত্র পছন্দ বলে মনে হচ্ছে, যখন আপনি আপনার উইন্ডোজ পিসি এবং মোবাইল কে একত্রে ব্যবহার করতে চান।

আমরা এখন মাইক্রোসফট এর নতুন মোবাইল স্র্যাটেজির শুরুর দিকে রয়েছি যার মূল লক্ষই হচ্ছে উইন্ডোজকে আরও আইওস এবং অ্যান্ড্রয়েড এর সমপোযোগী করে তোলা। এটা সত্য যে কম্পানি যেই ফিচারগুলো আইওস এ দিতে পারবে, তা অবশ্যই দিবে। অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপগুলোকে রিমোট কানেকশনের মাধ্যমে উইন্ডোজে ব্যবহার করতে দেওয়ার সুযোগ করে দেওয়া ইউজারদের উইন্ডোজ পিসির কাছে রাখার আরও একটি চালাক উপায়।

এই ফিচারগুলো মাইক্রোসফট এর বৃহৎ প্রোডাক্টিভিটি সার্ভিস এর ই অংশ বটে এবং পুরাতন ইউজারদের আরও একটু সুযোগ বাড়ানো টা বেশ উপযোগী কৌশল বলেই মনে হচ্ছে। এটা বেশ সাহসী পদক্ষেপ মাইক্রোসফট এর জন্য যা আমরা কখনওই গুগল অথবা অ্যাপেল এর কাছে থেকে দেখতে পারবনা, যদি না আপনি একটি ম্যাক অথবা ক্রোমবূক কিনছেন। মাইক্রোসফট এর “For the People” মেসেজটি মার্কেটিং বলে মনে হলেও এই মোবাইল প্ল্যাটফর্মে নতুন সার্ভিস দেখে মনে হয় এটি আসলেও উইন্ডোজ, আইফোন এবং অ্যান্ড্রয়েড ইউজারদের জন্য ভাল কিছু।

Related

কমেন্ট করুন